২৭ বছর পরেও অক্ষত মৃতদেহ

news

মর্দানা গ্রামের একটি মাদ্রাসার ঘর নির্মাণের জন্য খোড়াখুড়ি করার সময় একটি কবরের সন্ধান পায় নির্মাণ শ্রমিকেরা। এ সময় ওই কবর থেকে একজনের অক্ষত মরদেহ উদ্ধার করে তারা।

মরদেহের আত্মীয় স্বজনরা জানায়, মর্দানা গ্রামের এমাজ উদ্দিন মন্ডলের ছেলে করিম মন্ডল গেল ২৭ বছর আগে মৃত্যুবরণ করলে তাকে বাড়ির পেছনে পারিবারিক গোরস্তানে দাফন করে।

দীর্ঘ ২৭ বছর পর গত মঙ্গলবার কবরস্থানের পাশে মাদ্রাসার ঘর নির্মাণের জন্য খোড়াখুড়ি শুরু হয়। এক পর্যায়ে বৃহস্পতিবার ওই কবরস্থানের পাশে ঘর নির্মাণের জন্য খোড়ার সময় করিম মন্ডলের অক্ষত মরদেহ দেখতে পায়।

মৃত করিম মন্ডলের ছেলে মেন্টু মন্ডল (৪০) মরদেহটি শনাক্ত করে জানান, প্রায় ২৭ বছর আগে তার পিতার স্বাভাবিক মৃত্যু হলে ওই স্থানে দাফন করা হয়। তবে মরদেহের শরীরের কোন পরিবর্তন হয়নি। এমনকি কাফনের কাপড়েরও কোন পরিবর্তন ঘটেনি।

তিনি আরও জানান, তার পিতা ইসলামিক বিধি বিধান মেনে চলতেন।এলাকাবাসী জানায়, মৃত করিম মন্ডল অত্র এলাকার মধ্যে একজন ধার্মিক ব্যক্তি ছিলেন। এদিকে খবর পেয়ে শত শত এলাকাবাসী মরদেহ দেখার জন্য ভিড় জমায়। বৃহস্পতিবার (১১ মার্চ) সকাল ১০টার দিকে মরদেহটি সরিয়ে অন্য স্থানে দাফন করা হয়েছে বলে এলাকাবাসী জানিয়েছেন।

শামশুজ্জোহা বিদ্যুৎ,চাঁপাইনবাবগঞ্জ