স্বামীকে আটকে রেখে গৃহবধূকে গণধর্ষণ

TONGI DARSHAN

টঙ্গীতে স্বামীকে আটকে রেখে গৃহবধূকে পালাক্রমে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। স্থানীয় মরকুনস্থ টিঅ্যান্ডটি বাজার রহমান মার্কেটের একটি মেসে শুক্রবার রাতে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় রোববার দুজনকে অভিযুক্ত করে টঙ্গী পূর্ব থানায় মামলা দায়ের করেছে ভুক্তভোগী ওই নারী। এ ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত শফিকুল ইসলাম (৪০) ও ফিরোজ (৩৫) গা ঢাকা দিয়েছেন। মামলা এজাহার সূত্রে জানা যায়, ভুক্তভোগী ওই নারী তার স্বামীর সঙ্গে ভাড়া বাসায় বসবাস করে একটি প্রাইভেট কোম্পানিতে চাকরি করে। অভিযুক্ত শফিকুল ইসলাম ও ফিরোজ মরকুন টিঅ্যান্ডটি বাজারস্থ রহমান মার্কেটের মেসে থাকে। শুক্রবার রাত ১১টার দিকে ভুক্তভোগী নারীর বাসা থেকে তার স্বামীকে ডেকে মেসে নিয়ে মারধর করেন শফিকুল ইসলাম। সহযোগী ফিরোজকে মারধরের খবরটি বাসায় গিয়ে জানালে, স্বামীকে ছাড়াতে দ্রুত ঘটনাস্থলে যায় ওই নারী। এ সময় ফিরোজ তার স্বামীকে মেসের রুম থেকে বের করে অন্য রুমে নিয়ে যায় এবং ভুক্তভোগী নারীকে সফিকুল ইসলামের রুমে আটকে রাখে। পরে তারা রাতভর ওই নারীকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। পরে ওই নারীর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে তাদের উদ্ধার করে টঙ্গী শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে প্রাাথমিক চিকিৎসা দেন। পুলিশ ওই নারীর স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার (অপরাধ দক্ষিণ) মোহাম্মদ ইলতুৎমিশ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে।
মৃণাল চৌধুরী সৈকত,সিনি: স্টাফ রিপোর্টার

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap