স্ত্রীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ ভিডিও ফেসবুকে,স্বামী আটক

Intimate video with wife on Facebook

লালমনিরহাটের হাতীবান্ধায় শাশুড়ির করা পর্নোগ্রাফি মামলায় মেয়ে জামাইকে আটক করেছে পুলিশ। স্ত্রীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ছবি ও ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয়ায় ওই যুবকের শাশুড়ি থানায় গিয়ে পর্নোগ্রাফি মামলাটি করেন।

রোববার বিকেলে আটক আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এর আগে গত শনিবার রাত ১টার দিকে গোপন তথ্যের ভিত্তিতে নীলফামারী জেলার জলঢাকা উপজেলা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার ইকবাল হোসেন মান্না (২১) ওই উপজেলার টংভাঙ্গা ইউপির বাড়াইপাড়া গ্রামের মানিক মিয়ার ছেলে।

পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার সিন্দুর্না ইউনিয়নের মৃত আবু সাঈদের মেয়ে ৭ম শ্রেণিতে পড়াকালীন প্রেমের সূত্রে ইকবাল হোসেন মান্নার সঙ্গে পালিয়ে গিয়ে বিয়ে করে।

৬ মাস সংসার করার পর তাদের মধ্যে যৌতুক নিয়ে কলহ শুরু হয়। এরপর তিন মাস ধরে ওই মেয়ে বাবার বাড়িতে অবস্থান করছে। ইকবাল হোসেন মান্না তার স্ত্রীকে কয়েকবার নিতে গেলে মেয়ের মা তাকে ছাড়েননি।

এই ক্ষোভে ইকবাল হোসেন মান্না স্ত্রীর সঙ্গে তোলা বেশ কিছু অন্তরঙ্গ ছবি ও ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে দেন। ওই ঘটনায় মামলা করেন মেয়ের মা।

এদিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে স্ত্রীর অশ্লীল ছবি ছড়িয়ে দেয়ায় পুরো জেলা জুড়ে নিন্দার ঝড় উঠেছে। মেয়েটি লোকলজ্জায় গত রোববার রাতে আত্মহত্যার চেষ্টাও করে বলে জানা গেছে।

আরও পড়ুনঃ ছাত্রীকে ৩ বছর ধর্ষণ! এমন শিক্ষক কোন ছাত্রীর জীবনে না আসুক

হাতীবান্ধা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওমর ফারুক জানান, মামলার পর ইকবাল হোসেন মান্না গা ঢাকা দেন। পরে গোপন তথ্যের ভিত্তিতে নীলফামারীর জলঢাকা উপজেলা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। রোববার বিকেলে ইকবাল হোসেন মান্নাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap