সমুদ্র দেখানোর টোপ দিয়ে গৃহবধূকে ধর্ষণ

Rape of a housewife with sea-watching helmet

গৃহবধূকে মাদক মেশানো খাবার খাইয়ে হোটেলে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে সৈকত মাইতি নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের পটাশপুর থানা পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ওই গৃহবধূর ছেলে স্থানীয় একটি বেসরকারি স্কুলে পড়াশুনা করে। আর অভিযুক্ত ব্যক্তি সেই স্কুলের গাড়ি চালায়। গৃহবধূকে সে দিঘার সমুদ্র দেখানোর টোপ দেয়।

ওই গৃহবধূ তার কথায় আশ্বস্ত হয়ে গত ২১ জানুয়ারি তার সঙ্গে দিঘা বেড়াতে যায়। এরপর সেখানে গিয়ে তারা দিঘার একটি হোটেলে ওঠে।

এবং সেখানে তাকে মাদক মিশ্রিত খাবার খাইয়ে ধর্ষণ করে। শুধু তাই নয়, এ ঘটনা কাউকে জানালে তাকে প্রাণে মেরে ফেলারও হুমকি দেয়।

এদিকে, গত ২ ফেব্রুয়ারি পটাশপুর থানায় ওই যুবকের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন ওই গৃহবধূ। অভিযোগ পেয়ে ঘটনার তদন্তে নামে পুলিশ। তারপর অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পটাশপুর থানা পুলিশ।

আরও পড়ুনঃ ৩ প্রেমিককে সঙ্গে নিয়ে আরেক প্রেমিককে হত্যা

সোমবার অভিযুক্তকে কাঁথি মহকুমা আদালতে তোলা হলে বিচারক তার জামিন নাকচ করে দেন। সেই সঙ্গে ধর্ষিতা গৃহবধূর গোপন জবানবন্দি গ্রহণ করে বিচারক।

পটাশপুর থানার ওসি রাজকুমার দেবনাথ বলেন, অভিযোগের ভিওিতে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুরো ঘটনাটি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap