লোহাগড়ায় সম্পত্তি ও টাকা আত্মসাৎ করতে স্বামী হত্যার অভিযোগে স্ত্রী গ্রেফতার

lohagara

নড়াইলের লোহাগড়ায় সম্পত্তি ও ব্যাংকের গচ্ছিত টাকা আত্মসাৎ করতে স্বামী কবির হোসেন (৬০) কে হত্যার অভিযোগে নিহতের দ্বিতীয় স্ত্রী শোভা কবিরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার তাদের আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

শোভা কবির কালিয়া উপজেলার কলেজ রোড এলাকার আক্কাস সরদারের মেয়ে ও নড়াগাতী থানার কলাবাড়িয়া গ্রামের নিহত কবির হোসেনের দ্বিতীয় স্ত্রী। এ ঘটনায় নিহত কবির হোসেনের মেয়ে বাদি হয়ে লোহাগড়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

এজাহার ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নড়াগাতী থানার কলাবাড়িয়া গ্রামের কবির হোসেন লোহাগড়া পৌর এলাকার মদিনাপাড়ায় দ্বিতীয় স্ত্রী শোভা ও তার বোন ইভা খানমকে নিয়ে ভাড়া বাসায় থাকতেন। স্বামী কবির হোসেনের সম্পত্তি ও ব্যাংকে জমানো টাকা স্ত্রী শোভার নামে নেওয়ার জন্য দুই বোন বিভিন্ন ভাবে চেষ্টা করে আসছিলো। অবশেষে সে চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে তারা গত বছর ১০ নভেম্বর কবির হোসেনকে লোহাগড়ার ভাড়া বাসায় শ্বাসরোধ করে হত্যা করে এবং লাশ গ্রামের বাড়িতে নিয়ে দ্রুত দাফনের চেষ্টা করে। বিষয়টি কবির হোসেনের প্রথম পক্ষের মেয়ে ফারজানা লোহাগড়া থানাকে অবহিত করে। খবর পেয়ে লোহাগড়া থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নড়াইল সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।

এ ঘটনায় লোহাগড়া থানা পুলিশ নিয়মিত মামলা গ্রহন না করায় নিহতের মেয়ে ফারজানা বাদী হয়ে গতবছর ১৭ নভেম্বর নড়াইলের আমলি আদালতে নালিশী মামলা দায়ের করেন। আদালত অভিযোগ আমলে নিয়ে হত্যা মামলা হিসেবে এফ,আই,আর করার জন্য লোহাগড়া থানাকে নির্দেশ দেয়।

লোহাগড়া থানা পুলিশ গত ৭ মার্চ বিষয়টি আমলে নিয়ে দন্ডবিধির ৩০২/৩৪ ধারায় শোভা কবির (৩৫) ও তার বোন ইভা খানম (২৫) সহ অজ্ঞাত ৩/৪ জনকে আসামী করে হত্যা মামলা রেকর্ড করে। মামলা নং ৫/৫২।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা লোহাগড়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) হরিদাস রায় গত মঙ্গলবার রাতে অভিযান চালিয়ে শোভা কবিরকে তার পিতার বাড়ি কালিয়া থেকে আটক করে ।

এ ব্যাপারে লোহাগড়া থানার ওসি সৈয়দ আশিকুর রহমান জানান, গ্রেফতারকৃত শোভাকে বুধবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে। অন্য আটকের চেষ্টা চলছে।

ইকবাল হাসান/নড়াইল প্রতিনিধি