রাশিয়ার সেনাবাহিনীর মেরুদণ্ড ভেঙে দিয়েছে ইউক্রেন,দাবি জেলেনস্কির

Ukraine has broken the backbone of Russian army

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন গত ২১ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলীয় ডোনেটস্ক ও লুহানস্ক অঞ্চলকে আলাদা স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেন। রুশ ভাষাভাষী অধ্যুষিত এই দুটি অঞ্চল একত্রে ‘ডোনবাস’ নামে পরিচিত।

স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতির পর অঞ্চল দুটিকে বেসামরিকীকরণের লক্ষ্যে গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। এখন পর্যন্ত ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি শহর দখলে নিয়েছে রুশ বাহিনী। তবে নিজেদের সাধ্যমতো প্রতিরোধীও গড়ে তোলার চেষ্টা করছে ইউক্রেনীয় বাহিনী।

এমন পরিস্থিতিতে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি দাবি করেছেন, বিশ্বের ‘অন্যতম সামরিক শক্তির’ দেশ রাশিয়ার সেনাবাহিনীর মেরুদণ্ড ভেঙে দিয়েছে ইউক্রেন। আগামী কয়েক বছরেও রাশিয়ানরা পূর্বের অবস্থায় ফিরে যেতে পারবে না।

শনিবার ইউক্রেনের একটি টেলিভিশনে প্রচারিত পূর্বে ধারণকৃত ৭৫ মিনিটের এক বক্তব্যে এসব মন্তব্য করেন জেলেনস্কি। দেশটির প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার ৩ বছর পূর্তি উপলক্ষে জেলনস্কির এই বক্তব্যটি প্রচার করে ওই টেলিভিশনটি। খবর বিবিসি অনলাইনের। তবে বিবিসি ওই টেলিভিশনের নাম জানায়নি।

জেলেনস্কি বলেন, ইউক্রেনের রাশিয়ান আক্রমণের আগের, ২৩ ফেব্রুয়ারির স্থিতাবস্থায় ফিরে যাওয়ার অর্থ হবে আমাদের বিজয়। এর অর্থ হবে যুদ্ধের ‘প্রথম ধাপের’ সমাপ্তি। এ সময় তিনি উল্লেখ করেন, একমাত্র কূটনৈতিকভাবেই এই সংঘাতের পরিপূর্ণ সমাধান হতে পারে।

আরও পড়ুনঃ ন্যাটোকে মোকাবেলায় সক্ষমতা বাড়াচ্ছে রাশিয়া

জেলেনস্কি জোর দাবি করেন, রাশিয়ান এই আক্রমণের জন্য তার দেশ যথেষ্ট প্রস্তুত ছিল এবং রাশিয়ানরা ইউক্রেনকে অবমূল্যায়ন করেছে। তারা বেশকিছু বিষয় জানত না।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap