মাদ্রাসা ছাত্রীকে শ্লীলতাহানি দায়ে আটক ৪ বখাটে - Metronews24 মাদ্রাসা ছাত্রীকে শ্লীলতাহানি দায়ে আটক ৪ বখাটে - Metronews24

মাদ্রাসা ছাত্রীকে শ্লীলতাহানি দায়ে আটক ৪ বখাটে

Madrasa student detained for abusing student

পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে আটক ৪ বখাটের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যায় ওই ছাত্রীর পিতা বাদী হয়ে কলাপাড়া থানায় এ মামলাটি দায়ের করেন।

আটক মো. সরোয়ার হোসেন (২০), নোমান (২০), হাসান গাজী (২১) ও নাজমুলের (২০) বাড়ী উপজেলার নীলগঞ্জ ইউনিয়নের কুমিরমারা গ্রামে।

মামলার বিবরণ সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে ওই ছাত্রী মাদ্রসায় যাওয়া আসার পথে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল বখাটে মামুন।

বিষয়টি ওই শিক্ষার্থীর বাবা মাদ্রাসার প্রিন্সিপালসহ স্থানীয় কয়েকজনকে জানান। ঘটনার দিন পরীক্ষা শেষে বাড়ি ফেরার পথে বখাটে মামুনসহ তার সহযোগিরা শিক্ষার্থীরকে শ্লীলতাহানির চেষ্টা চালায়। বিষয়টি স্থানীয়রা দেখে চার বখাটে যুবককে আটকে রেখে পুলিশে খবর দেয়।

আরও পড়ুনঃ ছাত্রীকে চলন্ত বাসে যৌন হয়রানি

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও পুলিশ উপ-পরিদর্শক মো.আলমগীর হোসেন জানান, নীলগঞ্জের দৌলতপুর সালেহিয়া আলিম মাদ্রাসার নবম শ্রেণির ওই শিক্ষার্থী মাদ্রাসা থেকে ক্লাশ করে বাড়ি ফেরার পথে তাহেরপুর গ্রামের টিলারের কাছে গতিরোধ করে শ্লীলতাহানির চেষ্টা চালায়।

এসময় স্থানীয় মানুষ বখাটেদের আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। আটককৃতদের মঙ্গলবার সকালে আদালতে প্রেরণ করা হয়।

কলাপাড়া থানার ওসি মনিরুল ইসলাম জানান, স্থানীয়রা যৌন নীপিড়নের সঙ্গে জড়িত চার জনকে আটক করে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে। মামলায় চারজনকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যহত রয়েছে।