মাদ্রাসার ৬ষ্ঠ শ্রেনির ছাত্রীকে পালাক্রমে ধর্ষন

Sixth grade student raped in Madrasa

ঝালকাঠির রাজাপুরে মাদ্রাসায় পড়ুয়া ৬ষ্ঠ শ্রেনির এক শিক্ষার্থী গণধর্ষনের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনার সাথে জড়িত মোঃ সাগর খান (১৮) ও মোঃ হেমায়েত খলিফা (৪০) নামে দুই ধর্ষককে আটক করেছে রাজাপুর থানা পুলিশ। রাতে দুইজনকে আটক করলেও ঘটনার সাথে জড়িত মোঃ জালাল হাওলাদার (৪০) পলাতক রয়েছে।

ধর্ষিতা জানায়, রবিবার বিকালে ধর্ষিতকে তার নিজ ঘরের সামনে বসা থাকতে দেখে একই এলাকার রশিদ হাওলাদারের পুত্র মোঃ জালাল হাওলাদার (৪০) প্রথমে এসে ধর্ষিতাকে জানায় তোকে হেমায়েত তার বাড়িতে ডাকে।

জালালের কথায় কোন কর্ণপাত না করে মেয়েটি বসে থাকে। কিছুক্ষন পরে আবার একই এলাকার মোঃ শহিদ খানের পুত্র মোঃ সাগর খান (১৮) এসে পুনরায় আবার ধর্ষিতা মেয়েটিকে বলে তোকে হেমায়েত তার বাড়িতে ডাকে।

মেয়ে কি জন্যে ডাকে জানার জন্য হেমায়েতের বাড়ি যায় এবং দড়জায় দাড়িয়ে কেন ডেকেছে জানতে চাইলেই হেমায়েত তার ঘরে কেউ না থাকার সুযোগে মেয়েটিকে টেনে ভিতরে নেয় এবং সাগর, জালাল ও হেমায়েত তিনজনেই পালাক্রমে ধর্ষন করে।

আরও পড়ুনঃ ধর্ষণের শিকার মাদরাসা ছাত্রীটি অন্তঃসত্ত্বা

পরে এ ঘটনা কাউকে না বলতে মেয়েটিকে ভয়ভীতি দেখায়। এমনকি এ কথা কাউকে জানালে মেয়েটিকে মেরে ফেলা হবে বলে ধর্ষনকারীরা হুমকি দেয়।

এ বিষয়ে রাজাপুর থানা ওসি (তদন্ত) মোঃ আবুল কালাম আজাদ জানান, ঘটনার সাথে জড়িত ২ জনকে আটক করা হয়েছে। বাকিদের আটক করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মামলা রেকর্ড করা হয়েছে।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap