ভয়াবহ দূষণের কবলে পদ্মা

প্রতিবার যখনই লঞ্চ দিয়ে পদ্মা পার হওয়ার একটা ব্যাপারে প্রচন্ডরকম ভাবে হতাশ হতে হয়। লঞ্চে চলাচলকারি প্রত্যেকেই নদী দূষিত করছে বিভিন্নভাবে।

পদ্মায় সরেজমিনে দেখা গেল যে এমন কেও নেই লঞ্চ এ যিনি পানিতে একটি বোতল ফেলেন নি, কফি খেয়ে “ওয়ান টাইম কাপ” টা ফেলেন নি, কাগজ তো বাদই দিলাম। নদী পার হওয়ার সময় দেখবেন নদীতে প্লাস্টিক এর বোতল ভেসে রয়েছে হাজার হাজার।

দূষণের কারণে নদীতে মাছ উৎপাদন বাধাগ্রস্ত হয়ে পড়বে বলে আশংকা করছে মৎস্য গবেষণা ইনস্টিটিউট।প্রতিদিন শত-শত লঞ্চ এবং হাজার হাজার মানুষ পদ্মা পার হয়, এমন অবস্থা যদি চলতে থাকে তবে খুব বেশি সময় লাগবে না আমাদের নদী-মাতৃক দেশ হিসেবে নিজেদের পরিচয় হারাতে আর হারিয়ে ফেলবো আমাদের মাছে-ভাতে বাঙ্গালী’র পরিচয়।

নদী গবেষকরা আরও জানিয়েছেন, পদ্মা দূষণের পরিমাণ ক্রমান্বয়ে বাড়ছে। পানিতে ক্ষতিকর এমোনিয়ার কারণে দেখা দিচ্ছে মাছের খাদ্য ঘাটতি।

পদ্মা নদীকে দূষণমুক্ত রাখতে এখনই কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণের পরামর্শ দিয়েছেন পরিবেশবিদরা।

বিশেষজ্ঞ ও পরিবেশবিদদের আশংকা, পদ্মার দূষণ রোধ না করা গেলে ইলিশসহ অন্যান্য মাছ উৎপাদন আরও কমতে থাকবে।

নদীতে চলাচলকারী প্রত্যেক-কেই সচেতন হতে হবে নিজের দেশ এর সম্পদ রক্ষা করার জন্য এবং আইনানুগ ব্যবস্থাও নিতে হবে জোরালোভাবে।

জান্নাতুল ফেরদৌস/মোট্রোনিউজ২৪

Comments
0