বাবা-ছেলে মিলে ১০ বছর ধরে ধর্ষণ

raped two girls in their family every day for 10 years

ঘটনাটি ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের ওয়েস্ট ভার্জিনিয়ার। বাবা ও ছেলে মিলে ২০০৭ সাল থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত ১০ বছর সময় ধরে দুই যুবতীকে ধর্ষণ করেছে।

জানা গেছে, অভিযুক্ত বাবার নাম ফ্রাঁসিস কিলিং। তার বয়স ৭৩ বছর। আর ছেলের নাম নাথানিয়েল কিলিং। তার বয়স ৩৮ বছর।

তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, ১০ বছর ধরে তারা দুই যুবতীকে ধর্ষণ করে আসছেন। হাসপাতালের বেডে, চার্চে।

যেখানেই সুযোগ পেয়েছেন, তাদেরকে একা পেয়েছেন অমনি তাদেরকে ধর্ষণ করেছেন তারা। এখন বিচারের জন্য অপেক্ষায় আছেন এই পিতাপুত্র।

অভিযোগ আছে, তারা প্রতিদিন ওই যুবতীদের ধর্ষণ করতেন। তাদের বিরুদ্ধে সব মিলিয়ে ২১৬টি অভিযোগ আনা হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের ওয়েস্ট ভার্জিনিয়ার বেকলিতে অবস্থিত একটি চার্চের বেসমেন্টে ২৪ ঘণ্টায় তিনবার এক যুবতীকে ধর্ষণ করেছেন ফ্রাঁসিস। নির্যাতিত যুবতীরা এর পর মে মাসে পুলিশে অভিযোগ দেন।

আরও পড়ুনঃ বাগদাদির উত্তরসূরির নাম ঘোষণা,সাথে আইসিসের হুঁশিয়ারি

দু’এক মাসের ব্যবধানে গ্রেফতার করা হয় বাবা-ছেলে দু’জনকেই। বলা হয়, নির্যাতিত ওই দুই যুবতী তাদের আত্মীয়। তবে কেমন আত্মীয়, বা কি হন তারা, তাদের নাম, এর কিছুই প্রকাশ করা হয়নি।

এক যুবতী অভিযোগ করেছেন, তিনি একটি হাসপাতালের বিছানায় ছিলেন। সেখানে সেই বিছানা শেয়ার করতে তাকে বাধ্য করেন ফ্রাঁসিস। এ সময় তাকে ধর্ষণ করেন তিনি।

তার আরও অভিযোগ, তিনি একা ঘুমানোর চেষ্টা করছেন এমনটা বুঝতে পারলেই তার পিছু নিতো ফ্রাঁসিস। বাধ্য করতো তার বিছানায় জায়গা দিতে।

সেখানেই তার ওপর যৌন লালসা মিটিয়ে নিতো। অভিযোগের পর গত ২৫ আগস্ট গ্রেফতার করা হয় ফ্রাঁসিসকে। একজন রক্ষক, অভিভাবক হয়ে যৌন নির্যাতন, যৌন সম্পর্ক স্থাপন ও যৌন হয়রানিসহ ৫২টি অভিযোগ গঠন করা হয়েছে তার বিরুদ্ধে।

অন্যদিকে, তার ছেলে নাথানিয়েলকে গ্রেফতার করা হয় ২১ অক্টোবর। তার বিরুদ্ধে ২০টি অভিযোগ গঠন করা হয়েছে।

বর্তমানে বাবা-ছেলে দু’জনকেই জেলে রাখা হয়েছে।

সূত্র: ডেইলি মেইল, দ্য সান

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap