ফরিদপুর রাজেন্দ্র কলেজ হোস্টেলে হামলা আহত ১৫ শিক্ষার্থী

ফরিদপুর রাজেন্দ্র কলেজ হোস্টেলে হামলা, আহত ১৫ শিক্ষার্থী

Generic placeholder image
  Ashfak

 ফরিদপুরের ঐতিহ্যবাহী সরকারি রাজেন্দ্র কলেজের একটি হোস্টেলে বহিরাগত দুর্বৃত্তরা হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।  
এসময় কলেজটির অন্তত ১৫ জন শিক্ষার্থী আহত হন।এছাড়া দুর্বৃত্তরা হোস্টেলটির টেবিল, চেয়ার, দরজা-জানালাসহ নানান আসবাবপত্র ভাঙচুর করে।
আহতের মধ্যে কয়েকজনকে শহরের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এছাড়া বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। আজ বুধবার  সন্ধ্যায় ফরিদপুর জেলা সদরের বায়তুল আমানে অবস্থিত কলেজটির কবি জসীমউদ্দিন হলে এ হামলা চালানো হয়।রাজেন্দ্র কলেজের বায়তুল আমান শাখায় ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে শিক্ষার্থীদের ওপর বহিরাগতরা হামলা চালিয়েছে বলে জানিয়েছে একটি সূত্র। ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র সেসব উচ্ছৃঙ্খল যুবকের কথা কাটাকাটি হয় শিক্ষার্থীদের।পরে এর জের ধরে ২৫-৩০ জন বহিরাগত হকিস্টিক ও লাঠিসহ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে কলেজটির কবি জসীমউদ্দিন হলে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায়।  
হামলার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সরকারি রাজেন্দ্র কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর অসীম কুমার সাহা।  তিনি বলেন, ওই এলাকার স্থানীয় বখাটেরা এ হামলা চালিয়েছে। এ হামলায় আমাদের কলেজের অন্তত ১৫-১৬ জন শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন। এছাড়া কবি জসীমউদ্দিন হলের টেবিল-চেয়ার, দরজা-জানালা সহ নানা জিনিসপত্র ভাঙচুর করেছে। শিক্ষার্থীদের মাঝে এখন আতঙ্ক বিরাজ করছে।  
অধ্যক্ষ আরও বলেন, কলেজের অনার্স-মাস্টার্স শাখার মাঠে ও কলেজের হোস্টেলের আশেপাশে নিয়মিত মাদক ও জুয়ার আড্ডা বসে। এছাড়া আমাদের কলেজের মাঠ দখল করে বহিরাগতরা আমাদের কলেজ ও হোস্টেলের শিক্ষার্থীদের খেলতে বাধা সৃষ্টি করছে। যেটা বড় দুঃখজনক।  একাধিকবার প্রতিবাদ করেও এর প্রতিকার করা সম্ভব হয়নি।

ফরিদপুরের কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এম,এ জলিল বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। এছাড়া কলেজ কর্তৃপক্ষকে এব্যাপারে একটি লিখিত অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে। অভিযোগ পেলে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ফরিদপুর জেলা প্রতিনিধি

মন্তব্য করুন হিসাবে:

মন্তব্য করুন (0)