নির্যাতনের শিকার গৃহবধুকে হাসপাতালে ভর্তির পর আউটসোর্সিং কর্মচারীর কু-প্রস্তাব

Tongi Nari Nirjaton

স্বামী শশুড় ও শাশুড়ির হাতে অমানুষিক নির্যাতনের পর এক গৃহবধু টঙ্গীর শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতালে ভর্তির পর হাসপাতালে রাতের ডিউটিকালে আউটসোসিং কর্মচারী রাকিব তাকে কু-প্রস্তাব দিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

এঘটনায় ওই গৃহবধু হাসপাতালের তত্বাবধায়ক বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে বলে জানা গেছে। অভিযোগে জানা যায়, ঠাকুরগাঁও জেলার হরিপুর থানার পশ্চিমবঙ্গা গ্রামের মৃত আতাউর রহমানের মেয়ে মোছা: রোজিনা আক্তার রুপা (৩০) এর সঙ্গে ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা থানার বড়গ্রাম সৈয়দপাড়া গ্রামের রেজাউল করিম রনি (৩৮) ২০১১ সালে বিয়ে হলেও কাবিন রেজিষ্টার না হওয়ায় স্বামী স্ত্ররি মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হয়। পরে ২০১৯ সালে কাবিন রেজিষ্ট্রি করা হয়। ইতিমধ্যে ওই গৃহবধু দু-সন্তানের জন্ম নেয়। স্বামী সন্তান নিয়ে ওই গৃহবধু ঋত্তরার ১০ নং সেক্টরস্থ ফুল বাড়িয়া সিরাজ মার্কেট এলাকার মন্টু মিয়ার বাড়িতে ভাড়া থাকা অবস্থায় পারিবারিক কলহের জের ধরে স্বামী রেজাউল করিম রনি, শ^শুড় এবং শ^াশুড়ি মিলে গত ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ইং রোজিনা আক্তার রুপাকে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করে। পরে প্রায় এক মাস ব্যাপী আহত ওই গৃহবধুকে কবিরাজী ঔষধ খাইয়ে ভালো করার নামে নামে তাকে হত্যার চেষ্টা করা হয় বলে রোজিনা দাবী কনে। তিনি বলেন, আমি বিষয়টি বুঝতে পেরে গত ৫ নভেম্বর টঙ্গীর শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হই। গত ৩ দিন পূর্বে খাবার দেয়াকে কেন্ত্র করে রাতের ডিউটিকালে আউটসোসিং কর্মচারী রাকিব আমাকে কু-প্রস্তাব দেয়। প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় রাকিব ও হাসপাতালের নার্স ও অঅউটসোর্সিং কর্মচারীরা তার সাথে প্রতিদিন খারাপ আচরণ করেন। আমি বাধ্য হয়ে গত ২ ডিসেম্বর-২০২১ হাসপাতালের তত্বাবধায় বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছি। অভিযোগটি জরুরী বিভাগের ডাক্তারের কাছে জমা দেয়া হয়েছে। হাসপাতালের জরুরী বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, ওই অভিযোগের কপিটি ওয়ার্ড ইনচার্জ মহুয়ার কাছে পাঠানো হয়েছে। এব্যাপারে ওয়ার্ড মাষ্টার তৌহিদুল ইসলাম হৃদয় জানান, আমি ঘটনাটি শুনেছি, তত্বাবধায়ক বরাবর নাকি ওই রোগী লিখিত অভিযোগ করেছেন। আমরা এখনো অভিযোগ হাতে পাইনি। অভিযোগ হাতে পেলে বোর্ড মিটিংয়ে অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া হবে। এব্যাপারে হাসপাতালের তত্বাবধায়কের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, এধরনের কোন অভিযোগ আমি পাইনি। অভিযোগ পেলে অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া হবে।
মৃণাল চৌধুরী সৈকত, টঙ্গী

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap