নওগাঁয় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ

Md Rahmatullah Ashike

নিয়ামতপুরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ষোড়শী এক কন্যাকে ধর্ষনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ধর্ষিতা ওই কন্যা ধর্ষক তারেককে (১৯) আসামী করে বুধবার নিয়ামতপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেছেন।

তারেক উপজেলার নিয়ামতপুর সদর ইউনিয়নের শালবাড়ী (ডাঙ্গাপাড়া) গ্রামের মন্তাজের ছেলে। ধর্ষনের এ ঘটনাটি ঘটে মঙ্গলবার রাতে ডাঙ্গাপাড়া গ্রামে।
অভিযোগ ও এজাহার সুত্রে জানা যায়, তারেক ওই কন্যাকে মাঝে মধ্যেই কুপ্রস্তাবসহ প্রেমের প্রস্তাব দিতো। প্রায় বছর ধরে তাদের মাঝে প্রেমের সম্পর্ক তৈরী হয়।

তারেক ও কন্যার বাড়ী একই গ্রামে হওয়ায় পথে ঘাটে প্রায়শঃ তাদের মধ্যে দেখা ও কথা হয় এবং শারীরিক সম্পর্ক স্থাপনের কথা বলতো তারেক।

মঙ্গলবার ওই ষোড়শী কন্যা সন্ধ্যার পর একই গ্রামের চাচা আলমগীরের বাড়ীতে যাওয়ার পথে তারেক তার পথ রোধ করে বিয়ের কথা বলে নিয়ে যায়।

পরে তাকে জোর করে ওই গ্রামের একটি কবরস্থানের আমতলায় ধর্ষন করে পালিয়ে যায় সে।
ওসি হুমায়ন কবির জানান, এ ঘটনায় ধর্ষনের শিকার ওই কন্যা বুধবার নিজে বাদী হয়ে ধর্ষকের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

মামলা দায়েরের পর ওই কন্যাকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য অঅধুনিক সদর হাসপাতাল নওগাঁয় পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্ত ধর্ষক তারেককে গ্রেফতারের সকল প্রকার চেষ্টা অব্যহত রয়েছে।
রহমতউল্লাহ ,নওগাঁ প্রতিনিধি