ঝাড়ফুঁক নামে তরুণীকে ধর্ষণ করল কবিরাজ

Kabiraj raped a young woman named Jharfunk

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লায় ২২ বছরের মানসিক প্রতিবন্ধী এক তরুণীকে ঝাড়ফুঁক চিকিৎসার নামে ধর্ষণ করার ঘটনায় আব্দুর রহিম প্রামানিক (৫৮) নামের ভুয়া কবিরাজকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

বুধবার (২৭ মে) গভীর রাতে ফতুল্লার কাশিপুর হাজীপাড়া এলাকা হতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ঘটনায় ধর্ষণের শিকার তরুণীর বাবা বাদী হয়ে ভুয়া কবিরাজের বিরুদ্ধে ফতুল্লা মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।

গ্রেপ্তারকৃত আব্দুর রহিম প্রামানিক সিরাজগঞ্জের শাহাজাদপুর থানার পোরজনা ইউনিয়নের রানীখোলা এলাকার মৃত সফি উদ্দিন প্রামানিকের ছেলে। সে ফতুল্লার কাশিপুর হাজীপাড়া শাহজাহান মোল্লার বাড়ির ভাড়াটিয়া হিসাবে বসবাস করে।

ফতুল্লা মডেল থানার পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) শুভ আহম্মেদ জানান, ভুয়া কবিরাজের সাথে তরুণীর বাবার দীর্ঘ ৮/৯ বছর ধরে বন্ধুত্বের সম্পর্ক। সেই সুবাধে কবিরাজ তাদের বাড়িতে নিয়মিত আসা যাওয়া করতো।

মানসিক প্রতিবন্ধী তরুণীকে ঝাড়ফুঁক করার জন্য বুধবার (২৭ মে) রাত ৯টায় তাদের বাড়িতে যায় কবিরাজ আব্দুর রহিম। তখন তরুণীকে ঘরে রেখে ঘরের সবাইকে ঘর থেকে বের করে দরজা বন্ধ করে দেয়।

ওই সময় চিকিৎসার কথা বলে মানসিক প্রতিবন্ধী তরুণীকে ধর্ষণ করে কবিরাজ। ওই সময় তরুণীর বড় ভাই জানালা দিয়ে উঁকি দিয়ে বিষয়টি দেখে ফেলে।

আরও পড়ুনঃ ৮ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করল ১৫ বছরের কিশোর

তখন চিৎকার করলে কৌশলে ভুয়া কবিরাজ পালিয়ে যায়। পরে ফতুল্লা থানায় অভিযোগ দায়ের করলে রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে আব্দুর রহিমকে গ্রেপ্তার করা হয়।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap