গায়ের রং নিয়ে কটু মন্তব্যের কড়া জবাব দিল সুহানা

Shah Rukh Khan daughter Suhana Khan shares hate

বলিউড বাদশা শাহরুখ খানের একমাত্র কন্যা সুহানা খান। সুহানা মাঝে মধ্যেই নানারকম সচেতনামূলক বিষয় নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কথা বলছে। সম্প্রতি তার একটি ছবিতে বর্ণবৈষম্যমূলক মন্তব্য করায় ক্ষুব্ধ হয়েছেন সুহানা।

মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) রাতে এমন এক মন্তব্য নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিজের অভিমত শেয়ার করেন তিনি। এরইমধ্যে সেটি  ভাইরাল হয়েছে।

সুহানার গায়ের রং নিয়ে কটু মন্তব্য করেছিলেন একজন। সেই মন্তব্যের স্ক্রিনশট দিয়ে বেশ ক্ষুব্ধ ভাষায় সুহানা তার পোস্টে লেখেন, ‘বর্তমানে নানা বিষয় নিয়ে আমরা অস্থির সময় পার করছি।

আমার মনে হয় এটিও একটি ব্যাপার যা নিয়ে আমাদের এখনই আলোচনা করা উচিত। কারণ শুধু আমি একা নই, আমার মত অনেক ছেলেমেয়েই রয়েছেন যারা এই নিকৃষ্ট ভাবধারা নিয়ে বেড়ে ওঠেন।

আমার ছবিতে মাঝে মাঝেই দেখা যায় অনেকে আমার গায়ের রং নিয়ে কটু মন্তব্য করেন। বেশি অবাক লাগে তারা সবাই প্রাপ্তবয়স্ক এবং ভারতীয় এটা দেখে। নিজ দেশের মানুষের কাছ থেকে এমন মন্তব্য আমাকে নিরাপত্তাহীন করে তোলে।’

তিনি আরও লিখেছেন, ‘ভারতীয় হিসেবে আমাদের গায়ের রং জন্মগত শ্যামলা বা বাদামি। অনেকের ক্ষেত্রে তা পরিবর্তনও হয়। কিন্তু এই ব্যাপারগুলো তো কারো হাতে নেই। কারো উচ্চতা বা গায়ের রং নিয়ে কথা বলো সত্যিই লজ্জাজনক।

আমি ৫ ফুট ৭ ইঞ্চি না, আমি ৫ ফুট ৩ ইঞ্চি এবং আমার গায়ের রং শ্যামলা; আর আমি তাই নিয়ে খুশি। আমি মনে করি আপনারও খুশি হওয়া উচিত।’

তার সেই পোস্টটি নজর কেড়েছে নেটবাসীদের। বলা যায় সেটি মনে ধরেছে সবাই। কটু মন্তব্য করা ওই ব্যক্তিটিকে ধুয়ে দিয়েছেন সুহানার ফলোয়ারেরা। সেইসঙ্গে গায়ের রং নিয়ে মেয়েদের অপমান করার প্রতিবাদ জানানোর জন্য সুহানার জন্য ভালোবাসা জানিয়েছেন তারা।

আরও পড়ুনঃ কোয়েলের নতুন ভিডিও প্রকাশ্যে আসতেই ভাইরাল!

প্রসঙ্গত, বেশ কিছুদিন ধরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সরব সুহানা খান। এর দিন কয়েক আগে বলিউডের মাদককান্ড নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট দিতে দেখা গিয়েছে তাকে। সেখানে তিনি দাবি করেছিলেন সবকিছুতে শুধু মেয়েদের দোষটাই দেখা হয়।

মেয়েদেরকে অপরাধী করতেই যেন সমাজের আনন্দ। কোনো পুরুষকে মাদকের জন্য সমন পাঠানো হয়নি, সেই বিষয়টি নিয়েই ছিলো তার পোস্ট।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap