অর্থ পাচার মামলায় জ্যাকুলিনকে জেরা!

Jacqueline Fernandez appears before the Enforcement Directorate in th

বলিউডের জণপ্রিয় অভিনেত্রী জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজ ভারতের কেন্দ্রীয় সংস্থা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটরের (ইডি) প্রশ্নের মুখে। ২০০ কোটি টাকার অর্থ পাচার মামলায় এর আগে ৪ বার তাকে সমন পাঠিয়েছিল ইডি। প্রতিবারই এড়িয়ে গেলেও বুধবার ইডির প্রশ্নের মুখোমুখি হন এ অভিনেত্রী।

বুধবার (২০ অক্টোবর) দুপুরে ইডির দিল্লির অফিসে গিয়েছেন জ্যাকুলিন। এদিন প্রিভেনসন অফ মানি লন্ডারিং অ্যাক্টের আন্ডারে জ্যাকলিনের বয়ান রেকর্ড করা হয়েছে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবর, ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে অভিযুক্ত সুকেশ চন্দ্রশেখরকে টাকা পাঠাতেন জ্যাকুলিন। এ সংক্রান্ত তথ্য প্রমাণ ইডি কর্তাদের হাতে রয়েছে। এ ঘটনায় জ্যাকুলিন ছাড়াও বেশ কয়েকজন বলিউড তারকা জড়িত বলে সন্দেহ ইডির।

বুধবার জ্যাকুলিনকে ইডির পক্ষ থেকে যেসব প্রশ্ন করা হয়েছে সেগুলো ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ হয়েছে। প্রশ্নগুলো নিচে তুলে ধরা হলো-

১) কবে প্রথম সুকেশ অথবা তার স্ত্রী লীনা মারিয়া পালের সঙ্গে দেখা হয় জ্যাকুলিনের?

২) সুকেশের সঙ্গে কি ফোনে কথা হত জ্যাকুলিনের? উত্তর হ্যাঁ, হলে কতবার কথা হয়েছে?

৩) সুকেশের সঙ্গে কখনও দেখা করেছেন জ্যাকুলিন?

৪) গত ৩  বছরে সুকেশ এবং তার স্ত্রীয়ের সঙ্গে জ্যাকুলিনের কোনও আর্থিক বা ব্যবসায়িক লেনদেন কি হয়েছে?

৫) সুকেশ এবং তার স্ত্রী’র কাছ থেকে কি কোনও উপহার পেয়েছেন জ্যাকুলিন? সেই উপহার কী?

আরও পড়ুনঃ আরও ফেঁসে যাচ্ছে আরিয়ান,উঠতি অভিনেত্রীর সঙ্গে মাদক নিয়ে আলোচনা!

দিল্লি পুলিশের ইকনমিক অফেনসেস উইং এর আগে সুকেশের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে। তার বিরুদ্ধে ২০০ কোটি টাকার অপরাধমূলক ষড়যন্ত্র, প্রতারণা এবং চাঁদাবাজির অভিযোগ রয়েছে।

সুকেশের চেন্নাইয়ের বাংলোতে তল্লাশি চালিয়ে ৮২ লাখ টাকা, দুই কেজি সোনা, ১৬টি দামি গাড়ি বাজেয়াপ্ত করেন ইডির কর্মকর্তারা। এরপরই জ্যাকুলিনের নাম সামনে আসে। প্রিভেনশন অফ মানি লন্ডারিং অ্যাক্টের (পি এম এল এ) নিরিখে এ অভিনেত্রীর বয়ানও রেকর্ড করা হয়।

চন্দ্রশেখর ও জ্যাকুলিনের মধ্যে কোনো আর্থিক লেনদেন হয়েছে কিনা খতিয়ে দেখছে ইডি। এছাড়াও আরও এক বলিউড তারকাকে ইতোমধ্যে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে ইডি।

0 Shares
  • 0 Facebook
  • Twitter
  • LinkedIn
  • Mix
  • Email
  • Print
  • Copy Link
  • More Networks
Copy link
Powered by Social Snap